সিডনির ইউনিটি গ্রামার স্কুলের ললিপপ ম্যান দেলোয়ার হোসেনকে ৩.১২ মিলিয়ন ডলার ক্ষতিপূরণ

সিডনির ইউনিটি গ্রামার স্কুলের ললিপপ ম্যান দেলোয়ার হোসেনকে ৩.১২ মিলিয়ন ডলার ক্ষতিপূরণ

0

সিডনিতে বসবাসকারী অস্ট্রেলিয়ান বাংলাদেশী দেলোয়ার হোসেন সিডনির ইউনিটি গ্রামার স্কুলের ললিপপ ম্যান ( স্কুলের রাস্তা পারাপারে ছাত্র ছাত্রীদের সহায়তা প্রদানকারী) হিসেবে কর্মরত ছিলেন ২০১০ সালে তখন তার বয়স ছিল ৫০ এর কাছাকাছি। গত ১০ ই ফেব্রূয়ারি ২০১০ সালে স্কুল চলাকালীন কন্সট্রাক্টশন সাইটের নিকটে স্টোর রোমে গ্যাস বিস্ফোরণের আগুন লেগে যায় এবং নিকটস্থ বিল্ডিং এর ছাদও ধসে যায়। দুর্ভাগ্যক্রমে দেলোয়ার হোসেনের শরীরের ৩০% আগুনে পুড়ে যায় এবংতার হাত স্থায়ীভাবে পুঙ্গ হয়ে যায়। খুবই কাছের ক্লাস রুমে ছাত্ররা ছিল এবং সৌভাগ্যক্রমে সকলেই নিরাপদ ছিল।

শারীরিক ভাবে স্থায়ী ক্ষতিগ্রস্ত হওয়ার কারণে এবং সারাজীবনের জন্য স্বাভাবিক মানসিক ও শারীরিক কর্মক্ষমতা নষ্ট হয়ে যাওয়ার কারণে দেলোয়ার হোসেন গত ২০১৮ সালে ইউনিটি গ্রামার স্কুল এবং কন্সট্রাক্টশন কোম্পানির বিরুদ্ধে মামলা করেন। তখন প্রধান কন্সট্রাক্টশন কোম্পানি হিসেবে কাজ করছিল বিনাহ প্রজেক্ট প্রাইভেট লিঃ এবং সাথে এম্মা প্লামবিং প্রাইভেট লিঃ যাদের দায়িত্ব ছিল এলপিজি গ্যাস লাইন স্থাপন করা। উল্লেখ্য এই দুইটি কোম্পানিরই লাইসেন্স বর্তমানে বাতিল রয়েছে।

নিউ সাউথ ওয়েলসের সুপ্রিম কোর্ট মামলাটি পর্যবেক্ষন করে দেখতে পান, যে এম্মা প্লামবিং গ্যাস স্থাপনের ক্ষেত্রে অনিরাপদ রেখেই কাজ করছিল, যার ফলে গ্যাস লিকের ফ্লো বাহিরের মুখী না রেখে বিল্ডিংয়ের ভিতরে রেখেই কাজ করছিল যার ফলে গ্যাস বিল্ডিংয়ের সিলিংএ জমা হচ্ছিল।দেলোয়ার হোসেন বিস্ফোণের আগের দিন বলেছিল এক ধরণের গন্ধ পাওয়া যাচ্ছে স্টোর রুমের ভিতরে। পরের দিন ১০ ফেব্রূয়ারি উনি যখন রুমের লাইট জ্বালানোর জন্য সুইচ অন করেন, তক্ষনি আগুনের সাথে এক ব্যাপক বিস্ফোরনের মুখে পড়েন তিনি । আগুনে পুড়ে যায় তার শরীর এবং দ্রুত হাসপাতালে নিয়ে যাওয়ার পর ভাগ্যক্রমে বেঁচে যান কিন্তু তার শরীরের স্থায়ী ক্ষতিগ্রস্ত সাধন হয় এবং হারান স্বাভাবিক কর্মক্ষমতা।

মামলাটি পর্যালোচনা শেষে ,গত ২ অক্টোবর নিউ সাউথ ওয়েলসের সুপ্রিম কোর্টের বিচারক স্টিফেন ক্যাম্পেল রায় প্রদান করেন এবং এই রায়ে শারীরিক ও মানসিক ক্ষতি, অতীত ও বর্তমান চিকিৎসা খরচ বাবদ ক্ষতিপূরণ হিসেবে দেলোয়ার হোসেনকে ৩.১২ মিলিয়ন ডলার প্রদানের নির্দেশ দেন এবং দেলোয়ার হোসেনের কোর্টের যাবতীয় খরচ বহন করার ও নির্দেশ প্রদান করেন। এই খরচের ব্যায় যুক্তভাবে ইউনিটি গ্রামার স্কুলে, বিনাহ প্রজেক্ট প্রাইভেট লিঃ এর ইনসুরার ইন্সুরেন্স অস্ট্রেলিয়া লিঃ, প্লামবিং এন্ড গ্যাস ফিটিং কন্ট্রাকটর ফাইভ স্টার এন্ড গ্যাস ট্যাংক এবং এলপিজি সাপ্লাইয়ার ইএলগ্যাস প্রত্যেকেই ক্ষতিপূরণের ২০% বহন করবে।

বিচারক স্কুল সহ অভিযুক্ত প্রতিটা কোম্পানিরই কর্মক্ষেত্র নিরাপদ রাখার জন্য দায়িত্বে অবহেলা ছিল বলে প্রমান পেয়েছেন এবং তা যিনি রায়ে উল্লেখ করেছেন ।
সূত্রঃ সেভেন নিউজ

Facebook Comments

You may also like

পাঁচ বছর ধরে যুদ্ধাপরাধী কাদের মোল্লাকে শহীদ লিখে আসছে সংগ্রাম!

ফজলুল বারী: যুদ্ধাপরাধের দায়ে ফাঁসিতে মৃতুবরনকারী কাদের মোল্লা ওরফে