এপ দিয়ে চিনতে পারবেন অস্ট্রেলিয়ার বিষধর সাপ ও মাকড়শা

এপ দিয়ে চিনতে পারবেন অস্ট্রেলিয়ার বিষধর সাপ ও মাকড়শা

0
ইস্টার্ন ব্রাউন স্নেক,  টাইগার স্নেক  অথবা ফ্যানেল ওয়েব স্পাইডার এইগুলো পৃথিবীর প্রথম সারির  বিষধর সাপ অথবা মাকড়শা এবং তাঁদের আবাসস্থল   অস্ট্রেলিয়ায়। বিষধর ব্রাউন স্নেক কিংবা রেডবেলি স্নেক অথবা রেডব্যাক স্পাইডার গ্রীষ্মের  শুরুতেই দেখা যায় এমনকি বাসাবাড়িতেও তাঁদের পছন্দের জায়গা হয়ে যায়।
মারি এবং নিক এই  দম্পতি অস্ট্রেলিয়ার সায়েন্স গবেষণা কেন্দ্র CSRIO যৌথভাবে  Critterpedia নামে  একটি মোবাইল এপ বানায় যার মাধ্যমে বন্য প্রাণী,  সাপ,  স্পাইডার এর ছবি তুলে স্ক্যান করলেই বলে দিবে প্রানীটি কতোটা ভয়ঙ্কর অথবা নিরীহ।
কেনো এই এপ নিয়ে কাজ করেছে এই  দম্পতিকে প্রশ্ন করা হলে তারা জানায়,  ২০১৪ সালে নিকের ব্রিটিশ বংশোদ্ভব মা অস্ট্রেলিয়া বেড়াতে আসে তাঁদের সিডনির  ওলংগং এর  বাসায়  যেখানে স্পাইডার,  সাপ প্রায়ই উনার চোখে পড়তো বাসায়  অথবা বাসার আশেপাশে। এতোই ভয় পেতো এবং উনাকে ধারণা দিতে তারা সাহায্য করতো বিভিন্ন তথ্য দিয়ে কোনটা বিষধর কোনটা না। এই থেকে তারা চিন্তা করলো এমন কিছু একটা বানানো দরকার যারা অস্ট্রেলিয়ায় বেড়াতে আসবে তারা যেনো ধারণা করতে পারে অস্ট্রেলিয়ার প্রাণী সম্পর্কে।
এরপর  ২০১৪ সালে এই কাজে হাত দেয় কিন্তু পরবর্তীতে টেকনোলজি এবং ডাটা কালেকশন নিয়ে বিপাকে পড়লে থামিয়ে দেয়। ২০১৮ সালে CSRIO তাঁদের এই কাজে সহায়তা দিলে পুর্নোদ্দমে আবার কাজে নামে। কিছু প্লেনথ্রা বিশেষজ্ঞ এবং  Data16 কোম্পানির সহায়তায় কাজটি সফলতার মুখ দেখে।
Data 16 এর  ম্যাট এডকক এবং তার টিম ব্যাকএন্ড এর কাজ করে দেয়। আর্টিফিশিয়াল ইন্টিলিজেন্স প্রযুক্তি ব্যবহার করে এই নতুন এপ  Enter Critterpedia মোবাইল এপটি আলোর মুখ দেখে। প্রায় দুই লক্ষ প্রাণীর ড্যাটা দিয়ে এই এপটি বানানো হয়েছে।
মারি ও নিক চ্যানেল সেভেনে গত সপ্তাহে এক সাক্ষাতে বলেন,  এই  এপ ডাউনলোড করে প্রাণীর ছবি তুললেই সাথে সাথে বলে দিবে বিস্তারিত সেই প্রাণী কোন ধরণের। এতে জীবন বাঁচবে মানুষের আবার প্রাণীকুলেরও। প্রাণীর জীবন  রক্ষায় অস্ট্রেলিয়া বরাবরই সচেতন।

Facebook Comments

You may also like

সিডনিতে আমাদের কথা নামে একটি সংগঠনের আত্মপ্রকাশ

কভিড ১৯ এর সময় সারা দুনিয়া জুড়েই মানুষের