কৃষিবিদ ইনস্টিটিউশন বাংলাদেশ অস্ট্রেলিয়া শাখার বার্ষিক সাধারণ সভা অনুষ্ঠিত

কৃষিবিদ ইনস্টিটিউশন বাংলাদেশ অস্ট্রেলিয়া শাখার বার্ষিক সাধারণ সভা অনুষ্ঠিত

0

গত ১৭ই  নভেম্বর ২০১৯ রোববার অত্যন্ত সফলভাবে অনুষ্ঠিত হলো কৃষিবিদ ইনস্টিটিউশন বাংলাদেশ, অস্ট্রেলিয়া শাখার বার্ষিক সাধারণ সভা ও সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান। সভাটি অনুষ্ঠিত হয়েছে সিডনিস্থ রকডেইল এর বনলতা রেস্তোরাঁ তে। সভায় সভাপতিত্ব করেন কৃষিবিদ ইনস্টিটিউশন বাংলাদেশ অস্ট্রেলিয়া শাখার সম্মানিত সভাপতি কৃষিবিদ ডঃ আব্দুস সাদেক। আর সভা পরিচালনা করেন কৃষিবিদ ইনস্টিটিউশন বাংলাদেশ অস্ট্রেলিয়া শাখার সাধারণ সম্পাদক কৃষিবিদ পরমেশ ভট্টাচার্য। প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন কৃষিবিদ ইনস্টিটিউশন বাংলাদেশ এর কেন্দ্রীয় কমিটির সম্মানিত কোষাধ্যক্ষ কৃষিবিদ এম আমিনুল ইসলাম।
সভার শুরুতেই প্রয়াত কৃষিবিদদের স্মরণে শোক প্রস্তাব পাঠ করা হয় এবং তাঁদের বিদেহী আত্মার শান্তি কামনা করে এক মিনিট নীরবতা পালন করা হয়। অতি সম্প্রতি কৃষিবিদ ইনস্টিটিউশন বাংলাদেশ এর  সভাপতি কৃষিবিদ জনাব এম, এম সালেহ এবং কৃষিবিদ ইনস্টিটিউশন বাংলাদেশ এর সাবেক মহাসচিব কৃষিবিদ জাভেদ ইকবাল এর স্মরনে স্মৃতিচারণ করা হয়। কৃষিবিদ মাহবুবুর রহমান পাটোয়ারী, কৃষিবিদ ডঃ মঞ্জুর হামিদ কচি এবং বিস্তারিত ভাবে আলোচনায় তুলে ধরেন ঢাকা থেকে আগত কৃষিবিদ ইনস্টিটিউশন বাংলাদেশ, কেন্দ্রীয় কমিটির সম্মানিত কোষাধ্যক্ষ কৃষিবিদ এম আমিনুল ইসলাম। তিনি আনন্দের সাথে জানান যে, কৃষিবিদ ইনস্টিটিউশন বাংলাদেশ কেন্দ্রীয় কমিটির কার্যালয়ের সভা কক্ষটি  প্রয়াত সালেহের স্মৃতি রক্ষার্থে তাঁর নামে নামকরণ করেছেন।

শোক প্রস্তাব পাঠ ও স্মরণ সভার পরেই কৃষিবিদ ইনস্টিটিউশন বাংলাদেশ অস্ট্রেলিয়া শাখার কোষাধ্যক্ষ কৃষিবিদ ডঃ বাবর আলী তাঁর  বার্ষিক আয় ব্যয়ের প্রতিবেদন পেশ করেন। কৃষিবিদ ইনস্টিটিউশন বাংলাদেশ অস্ট্রেলিয়া শাখার সাধারণ সম্পাদক কৃষিবিদ পরমেশ ভট্টাচার্য ইনস্টিটিউশন এর সকল কর্মকান্ডের বিস্তারিত বর্ণনা তাঁর বার্ষিক সম্পাদকীয় প্রতিবেদনে পেশ করেন।
আমন্ত্রিত  অতিথি ইঞ্জিনিয়ার্স ইনস্টিটিউট,অস্ট্রেলিয়া শাখার সম্মানিত সভাপতি ইঞ্জিনিয়ার আবদুল মতিন তাঁর মূল্যবান বক্তব্য রাখেন। তিনি তাঁর বক্তব্যে অস্ট্রেলিয়া এবং বাংলাদেশে তাঁদের পেশা ভিত্তিক কাজের অগ্রগতি তুলে ধরেন। বাংলাদেশের প্র,কৃ,চি এর ধারাবাহিকতায় এখানেও প্রোকৌশলী ও কৃষিবিদ সমন্বয় সাধন করে দেশের প্রযুক্তি উন্নয়নে যৌথভাবে কাজ করার দৃঢ় প্রত্যয় ব্যক্ত করা হয়। সভায় পারস্পরিক সাহায্য সহযোগিতার হাত সম্প্রসারিত করার একান্ত ইচ্ছা ব্যক্ত করা হয়।

এরপর শুরু হয় বাংলাদেশ এর কৃষি ও কৃষকের উন্নয়নে অস্ট্রেলিয়া প্রবাসী কৃষিবিদ এর ভূমিকা শীর্ষক গুরুত্বপূর্ণ,কর্মশালা। এই কর্মশালায় মূল প্রবন্ধ উপস্থাপন করেন কৃষিবিদ ইনস্টিটিউশন বাংলাদেশ অস্ট্রেলিয়া শাখার সম্মানিত সদস্য কৃষিবিদ রফিকুল হক মিঠু। এই পর্বে আলোচনায় অংশগ্রহণ করেন সভায় উপস্থিত ওয়েস্টার্ন বিশ্ববিদ্যালয় এর শিক্ষক ও গবেষক কৃষিবিদ ডঃ কাইয়ুম পারভেজ, উদ্ভিদ সংরক্ষণ ও সংগ নিরোধ এর বিধি, নীতিমালা ও নীতি নির্ধারন এবং এর ব্যবহার ও প্রকৃত কার্যকরীতা নিয়ে গুরুত্বপূর্ণ দিক নির্দেশনা প্রদান করেন কৃষিবিদ ডঃ মঞ্জুর হামিদ কচি, কৃষিবিদ ডঃ তারিক মোহাম্মদ জামান, কৃষিবিদ ডঃ আব্দুস সাদেক, কৃষি সম্প্রসারণ এর মাঠ পর্যায়ের অভিজ্ঞতার আলোকে আলোকপাত করেন কৃষিবিদ মোশাররফ হোসেন চৌধুরী, প্রাণীসম্পদ এবং এর সংগনিরোধ নিয়ে আলোচনা করেন কৃষিবিদ ডঃ রতন  কুন্ডু। সার্বিক দিক নিয়ে দিক নির্দেশনা মুলক আলোচনা করেন কৃষিবিদ আব্দুল জলিল। সর্বশেষ গুরুত্বপূর্ণ আলোচনার পরিসমাপ্তি টানেন বাংলাদেশ থেকে আগত সভার সম্মানিত অতিথি কৃষিবিদ ইনস্টিটিউশন বাংলাদেশ কেন্দ্রীয় কমিটির কোষাধ্যক্ষ কৃষিবিদ জনাব এম আমিনুল ইসলাম। তথ্য ও পরিসংখ্যান দিয়ে বাংলাদেশের প্রেক্ষাপট এবং কৃষি উন্নয়নে বর্তমান কৃষি বান্ধব সরকার এর বিভিন্ন সাফল্য ও চলমান কৃষি গবেষণা ও সম্প্রসারণ কর্মসূচি নিয়ে বিস্তারিত আলোচনা করেন। তিনি অত্যন্ত দক্ষতা ও বুদ্ধিমত্তার সাথে বিভিন্ন বক্তার প্রশ্নের উত্তর প্রদান করেন।

আমিনুল ইসলাম এর বক্তব্যের পর পরই নামাজ  ও মধ্যাহ্নভোজের বিরতির পর শুরু হয় সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান যা ছিল ভীষণ মনোমুগ্ধকর। এই মনোগ্রাহী অনুষ্ঠানে অংশ গ্রহণ করেন কৃষিবিদগন, তাঁদের ছেলেমেয়েরা ও অতিথি শিল্পী। অনুষ্ঠানের শুভ সূচনা ঘটে একটি নাচ দিয়ে নজরুল সংগীত এর তালে তালে। আর এই নাচে অংশ গ্রহণ করে সিডনির সবার প্রিয় অনিকা চৌধুরী মিশা। মিশার সুন্দর নাচ পরিবেশন এর জন্য কৃষিবিদ ইনস্টিটিউশন বাংলাদেশ অস্ট্রেলিয়া শাখার  এর পক্ষ থেকে ফুলেল শুভেচ্ছা জানান সিনিয়র কৃষিবিদ ডঃ কাইয়ুম পারভেজ। মিশার নাচ ছিল এক কথায় দর্শক নন্দিত। আর একটি নাচ নিয়ে আসে আমাদেরই কৃষিবিদ স্বপন সাহার মেয়ে তৃষা সাহা রায় রিমি। তাঁর নাচও সমাদৃত হয় দর্শক শ্রোতাদের কাছে। তাকে ফুলেল শুভেচ্ছা জানান সিনিয়র কৃষিবিদ জনাব আবুল বাশার। নাচ পরিবেশন করে কৃষিবিদ ইনস্টিটিউশন বাংলাদেশ অস্ট্রেলিয়া শাখার সাধারণ সম্পাদক কৃষিবিদ পরমেশ ভট্টাচার্য এর মেয়ে- অনন্যা ভট্টাচার্য রিতু ও ছেলে অর্ণব ভট্টাচার্য ঋত্বিক। তদের নাচও ছিল দর্শক কতৃক প্রশংসিত। পরে গান পরিবেশন করেন অতিথি সংগীতশিল্পী,  সিডনির পরিচিত নাম, আমাদের প্রিয় বন্ধু সাবেক সচিব, কৃষিবিদ জ্যোতির্ময় দত্ত উজ্জ্বল এর ভাগ্নে অভিষেক ঘোষ অভি। ওর গান ও গায়কী উপস্থিত দর্শক ও শ্রোতাদের মন ভীষণ ভাবে জয় করেছে। ওর গানে তবলায় সংগত করেছেন ইঞ্জিনিয়ার জন্মেজয় রায়।

এই দুই গুনী শিল্পীদের ফুলেল শুভেচ্ছা জানান কৃষিবিদ ডঃ আব্দুস সাদেক এবং কৃষিবিদ রফিকুল হক মিঠু। এরপর সংগীত পরিবেশন করেন কৃষিবিদ ইনস্টিটিউশন বাংলাদেশ অস্ট্রেলিয়া শাখার কার্যকরী কমিটির সম্মানিত সদস্য কৃষিবিদ নির্মল পাল। এরপর নাচ পরিবেশন করেন নিউক্যাসল বিশ্ববিদ্যালয়ে পিএইচডি অধ্যয়নরত কৃষিবিদ জনাব সাইফুল্লা   শাহরিয়ার ও তাঁর প্রিয় স্ত্রী কৃষিবিদ স্বর্না আক্তার। ওদের নাচের তালে তালে  দর্শকরাও নেচেছেন। এই জুটি কে ফুলেল শুভেচ্ছা জানান কৃষিবিদ ডঃ গুলেনূর হক এবং কৃষিবিদ ডঃ তারিক মোহাম্মদ জামান। গান পরিবেশন করে দর্শকদের হৃদয় জয় করেন কৃষিবিদ ডঃ কাইয়ুম পারভেজ। তাঁকে ফুলেল শুভেচ্ছা জানান কৃষিবিদ হারান চন্দ্র সরকার। দীর্ঘদিন পর তাঁর গান শুনে হারান দা ছিলেন আবেগে আপ্লুত।

গানের ডালা নিয়ে আসেন সিডনির প্রখ্যাত সংগীত শিল্পী মিসেস অমিয়া মতিন। তাঁর গান দর্শক শ্রোতারা মন্ত্র মুগ্ধের মত শুনেন। এক কথায় সবাই ছিল বিমোহিত। তাঁকে ফুলেল শুভেচ্ছা জানান কৃষিবিদ ইনস্টিটিউশন বাংলাদেশ অস্ট্রেলিয়া শাখার কার্যকরী কমিটির সম্মানিত সদস্য কৃষিবিদ নির্মল পাল।

একটি অপূর্ব অনন্য সুন্দর সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান উপহার দেওয়ার জন্য উপস্থিত দর্শক শ্রোতারা কৃষিবিদ ইনস্টিটিউশন বাংলাদেশ অস্ট্রেলিয়া শাখার বর্তমান কমিটি কে করতালির মাধ্যমে বিশেষ ধন্যবাদ জ্ঞাপন করেন। কৃষিবিদ ইনস্টিটিউশন সকল কৃষিবিদ এর – আর এই স্লোগান কে সামনে রেখে  সকল কৃষিবিদদের এই ইনস্টিটিউশন এর পতাকাতলে সমবেত হওয়ার জন্য কৃষিবিদ ইনস্টিটিউশন বাংলাদেশ, অস্ট্রেলিয়া শাখার সম্মানিত সভাপতি কৃষিবিদ ডক্টর আব্দুস সাদেক এবং সাধারণ সম্পাদক কৃষিবিদ পরমেশ ভট্টাচার্য উদাত্ত আহ্বান জানান। পরিশেষে এই বার্ষিক সাধারণ সভা ও সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান সফলভাবে সম্পন্ন করার জন্য উপস্থিত সকল কৃষিবিদ সহ আগত অতিথি, সকল কলা কুশলী, সাংবাদিক এবং প্রিন্ট ও ইলেক্ট্রনিক মিডিয়ার লোকজনদের ধন্যবাদ জ্ঞাপন করেন এবং সভার সমাপ্তি ঘোষণা করেন কৃষিবিদ ইনস্টিটিউশন বাংলাদেশ অস্ট্রেলিয়া শাখার সভাপতি কৃষিবিদ ডঃ আব্দুস সাদেক।

Facebook Comments

You may also like

পাঁচ বছর ধরে যুদ্ধাপরাধী কাদের মোল্লাকে শহীদ লিখে আসছে সংগ্রাম!

ফজলুল বারী: যুদ্ধাপরাধের দায়ে ফাঁসিতে মৃতুবরনকারী কাদের মোল্লা ওরফে