সিডনি বাঙালি কমিউনিটির ঈদ এক্সহিবিশন ১৭ এপ্রিল, ২৪ এপ্রিল ও ১ মে

সিডনি বাঙালি কমিউনিটির ঈদ এক্সহিবিশন ১৭ এপ্রিল, ২৪ এপ্রিল ও ১ মে

করোনা পরিস্থিতি এবং ভ্যাকসিনেশন এবং করোনা থেকে মৃত্যুর ঝুঁকি কমে আসতে ,সারা অস্ট্রেলিয়াতে একটু একটু করে স্বাভাবিক জীবনের প্রতিফলন হচ্ছে।  কোভিড-১৯ এর নিষেধাজ্ঞাগুলো একেবারেই কমে এসেছে । অফিস, স্কুল , খেলাধুলা , ক্লাব এবং অন্যান্য সাধারণ অনুষ্ঠানগুলো ধীরে ধীরে শুরু হয়েছে।

অস্ট্রেলিয়ার সবচেয়ে গণ বসতিপূর্ণ রাজ্য নিউ সাউথ ওয়েলস যেখানে পৃথিবীর সব কয়টি দেশের লোকজনের বসবাস রয়েছে এবং বছরজুড়ে  চলে নানা দেশীয় ও ধর্মীয় উৎসব।  অস্ট্রেলিয়া সরকার এতে উৎসাহ দিয়ে আসছে বহু বছর ধরেই। মুসলমানদের ক্ষেত্রেও এর প্রতিফলন রয়েছে। রমজানের শুরুতেই অস্ট্রেলিয়ার প্রধানমন্ত্রী স্কট মরিসন সহ সবকটি রাজ্যের প্রিমিয়াররাও  রমজানের শুভেচ্ছাবাণী দিয়েছে।

জীবন স্বাভাবিক হওয়াতে সিডনির জনপ্রিয় সংগঠন  সিডনি বাঙালি কমিউনিটি সিডনিতে বসবাসরত বাংলাদেশীদের জন্য  প্রতিবারের ন্যায়
আবার আয়োজন করছে তিনদিন ব্যাপী ঈদ এক্সিবিশনের। আর এই ঈদ এক্সহিবিশন চলবে ১৭ এপ্রিল , ২৪ এপ্রিল এবং পহেলা মে প্রতি রবিবার সকাল ১১ টা থেকে রাট ৯ টা পর্যন্ত ইঙ্গেলবার্ন কমিউনিটি হলে। এই হলের চারদিকে রয়েছে অসংখ্য ফ্রি গাড়ি পার্কিং এর সুবিধা এবং রেল ট্রেন স্টেশন থেকে মাত্র কয়েক শত মিটার দূরে। এছাড়াও রয়েছে ইফতার ও বাঙালি খাবার দাবারের রেস্টুরেন্ট ঠিক পাশেই।

আয়োজক কমিটির পক্ষ থেকে সেলিমা বেগম বলেন,”মূলত নারী উদ্যোক্তাদের সহায়তা করা এবং অনেকদিন বন্দী থাকা বাঙ্গালী কমিউনিটির মনে একটু ঈদের আমেজ নাই এই ঈদ এক্সহিবিশনের মূল উদ্দেশ্য। ”

গত বছরের মতো এইবারও এই ঈদ এক্সহিবিশনে বাংলাদেশী ২৬ টি নাম করা বুটিক হাউজ অংশ নিবে বিভিন্ন ধরণের শাড়ি , সালোয়ার কামিজ , পাঞ্জাবি , চাদর ,গহনা এবংনানা ধরণের ঈদ সামগ্রী নিয়ে।

You may also like

ডক্টর মুহাম্মদ ইউনুস মিথ্যা বলছেন

ফজলুল বারী:পদ্মা সেতুর উদ্বোধন পর্ব থেকে ডক্টর মুহাম্মদ